কয়লা ও গরু পাচারকাণ্ডে এবার রাজ্যজুড়ে তল্লাশিতে নামল ইডি

নিউজ ডেস্ক: কয়লা ও গরু পাচারকাণ্ডে এবার তদন্তে নামল এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট বা ইডি। সোমবার সকালে প্রায় দু’ প্ল্যাটুন সিআরপিএফ সঙ্গে নিয়ে ইডির ১২টি দল অভিযানে বের হয়। কলকাতার বাঙুর-সহ বিভিন্ন জায়গায় অভিযান শুরু করেছে তারা। সূত্রের খবর, কয়লাকাণ্ডে ইডির এই অভিযানে নজর রেখেছে দিল্লির ইডি সদর দফতর।

বাঙুর অ্যাভিনিউয়ে ব্যবসায়ী গণেশ বাগাড়িয়ার বাড়িতে প্রথমে তদন্তকারীদের একটি দল যায়। সঙ্গে সঙ্গে আরও একটি দল সেখানে হানা দেয়। এর আগে গণেশের বাড়িতে হানা দিয়েছিল সিবিআই। কয়লা-কাণ্ডের কিং পিন অনুপ মাজি ওরফে লালা ঘনিষ্ঠ ব্যবসায়ী গণেশ বলে তদন্তকারীরা জানিয়েছিলেন। যদিও সিবিআইয়ের আতস কাঁচের নিচে আসার পরই দুবাইয়ে পালিয়ে যান তিনি।

একদিকে যখন গণেশ বাগাড়িয়ার বাড়িতে যখন অভিযান চালাচ্ছে দু’টি দল তখন অন্য দিকে তদন্তকারীদের অপর একটি দল যায় হুগলির কোন্নগরে সঞ্জয় সিং নামে এক ব্যবসায়ীর বাড়িতে। প্রাথমিকভাবে জানা গিয়েছে, সঞ্জয় সিং কয়লা পাচারকাণ্ডের আর এক প্রধান অভিযুক্ত বিনয় মিশ্রের ঘনিষ্ঠ ব্যবসায়ী। লালা ও রাজনৈতিক প্রভাবশালীদের মধ্যে যোগাযোগের অন্যতম সেতু এই বিনয়। তাঁর মাধ্যমেই কয়লা পাচারের কোটি কোটি টাকার কাটমানি পৌঁছত প্রশাসনিক ও রাজনৈতিক প্রভাবশালীদের একাংশের কাছে। সেই বিনয়েরই ঘনিষ্ঠ সঞ্জয় সিং। বড়বাজারে তাঁর কাপড়ের ব্যবসা রয়েছে। এছাড়াও গড়িয়ার নারকেল বাগান এলাকায় ইসিএল-এর এক কর্মীর বাড়িতেও হানা দেয় ইডি। সেখানেও সিবিআইয়ের আধিকারিকরা অভিযান চালিয়েছিল।

Related Articles

- Advertisement -

Latest Articles