এবার বস্তাবন্দি দেহ উদ্ধার হাওড়ায়, যুবক খুনে গ্রেফতার স্ত্রী ও মেয়ে

নিউজ ডেস্ক: গোলাবাড়ির চালপট্টি ঘাটে বস্তাবন্দি দেহের পরিচয় জানতে পারল হাওড়া সিটি পুলিশ। সিসিটিভি ফুটেজ খতিয়ে দেখে নিহতকে চিহ্নিত করা গিয়েছে। মৃতের নাম শ্রমণ সিং (৪০)। ঘটনায় গ্রেফতার শ্রমণের স্ত্রী পিঙ্কি দেবী (৩২), মেয়ে আনসু কুমারী এবং পিঙ্কির প্রেমিক আমন গুপ্তা (৩২)।

হাওড়া সিটি পুলিশ সূত্রে খবর,বাড়ি ঘুসুরির কুলি লেনের বাসিন্দা ছিলেন মৃত শ্রমণ। অনুমান করা হচ্ছে, পিঙ্কির সঙ্গে আমন গুপ্তার বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্কের জেরে খুন হতে হয়েছে শ্রমণকে। জানুয়ারির ১ ও ২ তারিখে রাত ১০টা থেকে ১২টার মধ্যে শ্বাসরোধ করে নিজের বাড়িতেই খুন করা হয় শ্রমণকে বলে প্রাথমিক তদন্তে অনুমান করছে পুলিশ। মৃত্যু নিশ্চিত করে বস্তাবন্দি করা হয় দেহ। তারপর গোলাবাড়ি থানার চালপট্টি ঘাটে হুগলি ডকের পাশে ফেলে দেওয়া হয় বস্তাটি। আমন গুপ্তার সঙ্গে বাইকে করে এসে বাবার মৃতদেহ গঙ্গায় ফেলে যায় মেয়ে আনসু কুমারী। শ্রমণের সঙ্গে বিয়ের আগে পিঙ্কি আরও দু’টি বিয়ে করেছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

চাউলপট্টি ঘাটের জগন্নাথ মন্দিরের পুরোহিত প্রথম বস্তাবন্দি অবস্থায় দেহটি পড়ে থাকতে দেখেন। পরে খবর পেয়ে পুলিশ এসে বস্তাটি তোলে। বস্তার মুখটি খোলার পর দেখা যায় তার মধ্যে রয়েছে একটি দেহ। মৃতদেহ ময়না তদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। তারপরই তদন্তে নামে পুলিশ।

Related Articles

- Advertisement -

Latest Articles