বিধায়কের ফোন পেয়ে ৫০০ জন অনুগামী নিয়ে বিজেপি শিবির ছাড়লেন দাপুটে নেতা

নিউজ ডেস্ক: ৫০০ জন অনুগামী নিয়ে ঘাসফুল শিবির থেকে বিজেপিতে যোগ দিতে এসেও যোগ দিলেন না গেরুয়া শিবিরে। হুগলির ডানকুনিতে যেন উলটপুরাণ। শুধু তাই নয়, বিধায়কের ফোন পেয়ে কেঁদে ভাসালেন ডানকুনি পুরসভার ১৫ নম্বর ওয়ার্ডের বিদায়ী কাউন্সিলার কৃষ্ণেন্দু মিত্র।

কথা ছিল দিলীপ ঘোষের সভায় বিজেপিতে যোগ দেবেন কৃষ্ণেন্দু মিত্র। ডানকুনির নির্দল নেতা কৃষ্ণেন্দুর ব্যাপক দাপট রয়েছে নিজের এলাকায়। এ দিন সভায় এসেছিলেন তাঁর ৫০০ জন অনুগামীও। তবে শেষমেষ বিজেপিতে যোগ দিলেন না তিনি। বরং জানালেন, রাজনীতির সঙ্গে তিনি সমস্ত সম্পর্ক ত্যাগ করলেন।

দাপুটে ওই নির্দল নেতা এতদিন তৃণমূলকে সমর্থন করে গিয়েছেন। কৃষ্ণেন্দুবাবু জানান, তিনি কেন বিজেপিতে যোগ দিচ্ছেন একথা জানানোর জন্য তাঁকে বলার সুযোগ দেওয়া উচিত ছিল। যেহেতু তিনি ডানকুনির মানুষের স্বার্থে অন্য দলে যাচ্ছিলেন তাই ডানকুনিবাসীকে সেকথা জানানো অত্যন্ত প্রয়োজন ছিল। তিনি যদি তাঁর কথা ডানকুনির মানুষকেই জানাতে না পারেন আগামী দিনে মানুষই তাঁকে বলবে স্বার্থ ও টাকার জন্য অন্য দলে গিয়েছেন। কিন্তু সেটুকু বলার সুযোগ তাঁকে দেওয়া হয়নি। তাই নিজের আত্মসম্মান রক্ষার জন্য তিনি দলে যোগ না দিয়ে ফিরে গিয়েছেন। এর আগেই চণ্ডীতলার বিধায়ক স্বাতী খন্দকারের ফোন পাওয়ামাত্রই কেঁদে ভাসায়ি মঞ্চ ছেড়ে ছিলেন তিনি।

Related Articles

- Advertisement -

Latest Articles