আজই বিশ্বভারতীর থেকে রাস্তা ফেরত

নিউজ ডেস্ক : বোলপুরের প্রশাসনিক বৈঠকে বিশ্বভারতীর থেকে রাস্তা ফেরত নেওয়ার কথা ঘোষণা করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সেইমতো আজই রাস্তা ফেরত নিতে আসছেন জেলাশাসক ও পুলিশ সুপার। বিশ্বভারতীকে দেওয়া রাজ্যের কালিসায়ের মোড় থেকে উপাসনা মন্দির পর্যন্ত রাস্তা ফিরিয়ে নেওয়ার কথা ঘোষণা করেন মুখ্যমন্ত্রী। ময়দানে নামে বিশ্বভারতী কর্তৃপক্ষ। শান্তিনিকেতন দূরদর্শন কেন্দ্রের সামনের রাস্তা পাঁচিল দিয়ে ঘিরে দেয় তারা। অসুবিধায় পড়েন স্থানীয় বাসিন্দারা। তাঁদের অভিযোগ, চিত্রা মোড়, লাল পুলের যানজট এড়িয়ে এই রাস্তা ছিল শান্তিনিকেতন যাওয়ার জন্য শর্টকাট। কিন্তু বিশ্বভারতী কর্তৃপক্ষের পাঁচিল দেওয়ার ফলে অসুবিধায় পড়তে হচ্ছে। ওই রাস্তা চলাচলের উপযোগী করে দেওয়ার দাবি জানান তাঁরা। নাহলে বৃহত্তর আন্দোলনে নামার হুঁশিয়ারিও দিয়েছেন স্থানীয় বাসিন্দারা। এরই মাঝে শুক্রবার রাস্তা ফেরত নিতে আসছেন বীরভূম জেলা শাসক ও পুলিশ সুপার।

এদিকে আলাপনি মহিলা সমিতির ঘর বন্ধ করা নিয়ে নতুন করে বিতর্কে বিশ্বভারতীতে। ওই ঘর সিল করে দিয়েছে বিশ্বভারতী কর্তৃপক্ষ। বিশ্বভারতীর প্রাক্তনী আশ্রমিক মহিলারা থাকেন এই আলাপনি মহিলা সমিতিতে। সমিতির সদস্যরা দীর্ঘদিন ধরে আশ্রমের নানান কাজের সঙ্গে যুক্ত। তাঁদের বসার জন্য পাঠভবনে ঢোকার মুখে ঘরটি ছিল। সেই ঘর হঠাৎ নোটিশ দিয়ে বন্ধ করে দেয় বিশ্বভারতী কতৃপক্ষ। প্রতিবাদে পাঠভবন ঢোকার মুখে ঘরের সামনে অবস্থানে বসেছেন বিশ্বভারতীর প্রাক্তনী ছাত্রীরা। উল্লেখ্য, ১৯১৬ সালে আলাপনি মহিলা সমিতি প্রতিষ্ঠা করেছিলেন দ্বিজেন্দ্রনাথ ঠাকুর।

Related Articles

- Advertisement -

Latest Articles